পর্যটকদের জন্য সুখবর নিয়ে আসছে রাজস্থান পর্যটন বিকাশ নিগম- হিংলাজ দন রত্নু

Main দেশ ভ্রমণ রাজ্য
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Published on: সেপ্টে ১৯, ২০২২ @ ১০:১৪
Reporter: Aniruddha Pal

এসপিটি নিউজ, কলকাতা, ১৯ সেপ্টেম্বর: পর্যটনের জন্য পর্যটকদের জন্য সদা তৎপর রাজস্থান। পর্যটনকে কিভাবে আরও সুন্দর করে তোলা যায়, কিভাবে রাজস্থানে ঘুরতে যাওয়া পর্যটকদের আরও বেশি সুযোগ-সুবিধা দেওয়া যায় তা নিয়ে নিরন্তর প্রয়াস চালিয়ে যাচ্ছে রাজস্থান সরকার। পশ্চিমবঙ্গে থেকে সেই দায়িত্ব সাফল্যের সঙ্গে করে চলেছেন রাজস্থা তথ্য ও জনসংযোগ বিভাগের সহকারি পরিচালক ও রাজস্থান পর্যটন বিকাশ নিগমের ভারপ্রাপ্ত আধিকারিক হিংলাজ দন রত্নু। সংবাদ প্রভাকর টাইমস-কে দেওয়া এক বিশেষ সাক্ষাৎকারে তিনি জানালেন যে রাজস্থান পর্যটন বিকাশ নিগম পর্যটকদের জন্য সুখবর দিতে চলেছে।

এই দুটি কাজ খুব শীঘ্রই সম্পূর্ণ হতে চলেছে

রাজস্থান পর্যটন বিকাশ নিগমের ভারপ্রাপ্ত আধিকারিক হিংলাজ দন রত্নু এসপিটি জানান- এ বছর তাদের পর্যটনে ব্যাপক সাড়া পড়েছে। কলকাতা থেকে প্রচুর বুকিং হয়েছে। মানুষ আরও বেশি করে আসছে। খোঁজ-খবর নিচ্ছে। আমরা আশা করছি, সামনের কয়েক মাসে বুকিং-এর গতি আরও বাড়বে। এরই মধ্যে আমাদের পর্যটনের মূল আকর্ষণ প্যালেস অন হুইলস যা কনা গত দুই বছর ধরে করোনার জন্য বন্ধ ছিল তা চালু হতে চলেছে। আর দুই, আমাদের তিনটি হেরিটেজ হোটেলের পুনঃসংস্কার করা হচ্ছে, যা নব-কলেবরে পর্যটকদের সামনে খুব শীঘ্রই আত্মপ্রকাশ করতে চলেছে।

হেরিটেজ প্রপার্টির সংস্কার

হিংলাজ বলেন-“ আমাদের যে হেরিটেজ প্রপার্টি আছে তাতে তিন-চারটি হোটেল আছে। সেগুলি খুবই সুন্দর করে সাজিয়ে তোলা হচ্ছে। ঝুমুর-বাউরি যা আড়াইশো সালের পুরনো প্রপার্টি। এটি সোহাই মাধোপুরে রয়েছে। এরপর আছে পুষ্করে হোটেল সরোবর। যা রাজার আমলে একটা প্রাসাদ ছিল। সেটি আজ হোটেলে রূপান্তর করা হয়েছে। তৃতীয় , আনন্দ ভবন হোটেল।উদয়পুরে অবস্থিত। এই তিনটি হোটেলেরই পুনর্গঠনের কাজ চলছে। খুব শীঘ্রই এগুলি নয়া রূপে সামনে আসবে।”

চালু হতে চলেছে প্যালেস অন হুইলস

“এরপর আরও একটা দিক – প্যালেস অন হুইল। যা কিনা রাজস্থানের বিশেষ আকর্ষণ। আপনাকে একটা গুরুত্বপূর্ণ কথা বলতে চাই যে রাজস্থানের আধিকারিকরা এই প্যালেস অন হুইল চালু করার বিষয়ে এক গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে যোগ দিতে দিল্লিতে পৌঁছন(১৬ সেপ্টেম্বর)। ওইদিন আলোচনা বেশ ফলপ্রসু হয়েছে। খুব শীঘ্রই এই প্যালেস অন হুইল চালু হতে চলেছে। প্যালেস অন হুইলসে গত দু’বছরের বুকিং পড়ে আছে সেগুলি কার্যকর করা হবে। আরইডিসি-র মাথা উঁছু করার মতো প্রকল্প হল এই প্যালেস অন হুইল। আমাদের এটা জেনে ভাল লাগছে করোনার সময় বন্ধ হয়ে যাওয়া এই প্রকল্প ফের নতুন করে চালু হতে চলেছে। বিশ্বের প্রথম দশের মধ্যে রয়েছে এই প্যালেস অন হুইলস।” বলেন ক্লকাতায় রাজস্থান তথ্য ও জনসংযোগ বিভাগের সহকারি পরিচালক হিংলাজ দন রত্নু।

Published on: সেপ্টে ১৯, ২০২২ @ ১০:১৪


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •