TMC মানে ‘কাটমানি’, ‘চালচোর’, ‘ত্রিপলচোর’- বললেন নাড্ডা

Main দেশ রাজ্য
শেয়ার করুন

Published on: জানু ৯, ২০২১ @ ১৭:৫৮

এসপিটি নিউজ, কাটোয়া, ৯ জানুয়ারি:  কাটোয়ায় দলীয় কর্মসূচিতে অংশ নিতে এসে জনসভায় দাঁড়িয়ে রাজ্যের কৃষি, স্বাস্থ্য থেকে শুরু করে আমফান নিয়ে তৃণমূল কংগ্রেসকে বিঁধলেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জগৎ প্রকাশ নাড্ডা। এদিন তিনি অন্নদাতাদের হাতে সবজি তুলে দেন। একই সঙ্গে কৃষক সুরক্ষা অভিযানও শুরু করেন।

নাড্ডা এদিন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে উদ্দেশ্য করে বলেন- “মমতাজি, এতদিন বাদে আপনার মনে হয়েছে তাই এখন আপনি কৃষক নিধি প্রকল্প চালু করার জন্য চিঠি লিখছেন। কিন্তু তার আর দরকার নেই। আপনার চিঠি লেখার আগেই বাংলার ২৩ হাজার কৃষক অনলাইনে এই প্রকল্পের সুবিধা নেওয়ার জন্য আবেদন করে বসে আছেন। আর আজ আমরাও বাংলার কৃষকদের দিয়ে দেশজুড়ে কৃষক সুরক্ষা অভিযান শুরু কর দিলাম। ২৪ তারিখ পর্যন্ত বিজেপির কার্যকর্তারা রাজ্যের ৪০ হাজার গ্রাম সভা থেকে চাল-সবজি সংগ্রহ করবেন। এরপর ২৪ থেকে ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত আমরা কৃষকদের জন্য কৃষক ভোজ দেব। মোদি সরকার ইতিমধ্যে কৃষকদের জন্য বাজেট ছয় গুণ বাড়িয়েছে।

এরপরই সুর চড়িয়ে নাড্ডা বলেন- তৃণমূল সরকারের আমলে বাংলার কালচার এখন হয়ে গেছে কাটমানির কালচার। এখানে তো এখন চালচোর, ত্রিপলচোর, আলুচোর, বালিচোর, কয়লাচোর, সিন্ডিকেট এসব চলছে। এ কিসের সরকার চলছে। টিএমসি মানে কাটমানি, টিএমসি মানে চালচোর, টিএমসি মানে ত্রিপলচোর। একজন হিসেব চাইলো। আমফানের ক্ষতিপূরণের টাকার। মমতাজির সরকারকে বলা হল অডিট করিয়ে সিএজি রিপোর্ট জমা দিতে। আর দিদি সোজা চলে গেলেন সুপ্রিম কোর্টে। আরে আপনি চালচোর-ত্রিপলচোরদের বাঁচাতে চাইছেন দিদি! মমতাজি এত ভয় কেন? কি হচ্ছে! খালি বলে – হবে না, হবে না , হবে না। আমি বলছি- হবে-হবে-হবে।”

“আজ এখানে এত মানুষের স্বতঃস্ফূর্ত উচ্ছ্বাস দেখে একটা বিষয় পরিষ্কার করে দিয়েছেন আপনারা যে পশ্চিমবঙ্গে এবার মমতার সরকার যাচ্ছে আর বিজেপি সরকার আসছে। আপনাদের এই উপস্থিতি বলে দিচ্ছে যে বাংলার মানুষ ঠিক করে ফেলেছে -মমতাজিকে ঘরে পাঠাবে আর বিজেপিকে বাংলার কাজে লাগাবে।” বলেন নাড্ডা।

Published on: জানু ৯, ২০২১ @ ১৭:৫৮


শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

3 + 1 =